সহজ করার নির্দেশ পথশিশুদের জন্য ব্যাংকিং কার্যক্রম

0

আলোরপথ টোয়েন্টিফোর ডটকমঃ

আরো সহজ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক পথ শিশুদের ব্যাংকিং সেবা প্রদানে আগ্রহী এনজিওগুলোর জন্য সেবাদান প্রক্রিয়া । এর ফলে এ সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কাছ থেকে অনুমতি নেওয়ার বাধ্যতামূলক শর্ত তুলে নেওয়া হয়েছে। এর আগে বাধ্যবাধকতা ছিল বেসরকারি সাহায্য সংস্থা (এনজিও) জন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে অনুমতি নেওয়া ।

বাংলাদেশ ব্যাংক আজ এক সার্কুলারে জানিয়েছে, পথ শিশুদেরকে ব্যাংকিং সেবা প্রদানে আগ্রহী এনজিও যে কোন তফসীলি ব্যাংকে আবেদন করতে পারবে।
আবেদন পাবার পর উক্ত ব্যাংক আবেদনকারী এনজিও’র গ্রহণযোগ্যতা এবং ব্যাংকিং কার্যক্রম পরিচালনার ক্ষমতা যাচাই করে সংশ্লিষ্ট এনজিও’র সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করবে।
১৫ দিনের মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের গ্রীন ব্যাংকিং এবং সিএসআর বিভাগে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা দেবে ব্যাংক পথ শিশুদের জন্য ব্যাংকিং কার্যক্রম শুরু করার পর।
২০১৪ সালের ১০ মার্চ কেন্দ্রীয় ব্যাংক মাত্র ১০ টাকা জমা নিয়ে পথ শিশু এবং শিশু শ্রমিকদের ব্যাংক হিসাব খোলার জন্য সকল ব্যাংককে নির্দেশ প্রদান করে। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের এই নির্দেশনার পর দশটি ব্যাংক রাজধানীর কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন বাস ও ফেরি টার্মিনাল, বস্তি ও ফুটপাতে বসবাসকারী ভাসমনা শিশুদের জন্য ব্যাংক সেবা প্রদানে বেসরকারি সাহায্য সংস্থা এনজিও’র সাথে একটি চুক্তি করে। ব্যাংকগুলো হলো রূপালী ব্যাংক, অগ্রণী ব্যাংক, পূবালী ব্যাংক, ওয়ান ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক, সাউথ ইস্ট ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া, সিটি ব্যাংক, এনসিসি ব্যাংক এবং বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক। কোন ফি নেয়া হয়নি এই সব ব্যাংক হিসাব খুলতে ।

 

Share.

Comments are closed.