Visit Us On TwitterVisit Us On FacebookVisit Us On GooglePlusVisit Us On PinterestVisit Us On YoutubeVisit Us On Linkedin

গার্মেন্টস খাত এখনও হলি আর্টিজান হামলার ক্ষত বয়ে বেড়াচ্ছে

0

আলোরপথ টোয়েন্টিফোর ডটকমঃ

অর্থনীতি ডেস্ক
গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলার এক বছর হয়ে গেল। কিন্তু এখনও এর নেতিবাচক প্রভাব থেকে রেহাই পাচ্ছে না গার্মেন্টস খাতের শিল্প উদ্যোক্তারা। এখনও অনেক দেশের ক্রেতা তৈরি পোশাকের অর্ডার দিতে বাংলাদেশে আসতে ভয় পাচ্ছেন।
জানা গেছে, বাংলাদেশে বিদেশি  ক্রেতা ও পর্যটকরা আসা কমিয়ে দেওয়া শুরু করে মূলত ইতালি নাগরিক তাভেল্লা সিজার হত্যার পর থেকেই। এরপর আরও কয়েকজন বিদেশির ওপর জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটে? বিশেষ করে গুলশানে হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গিরা ১৭ বিদেশিকে হত্যার পর থেকে বাংলাদেশে সফরে আসার ব্যাপারে অত্যন্ত সতর্ক হয়ে পড়ে বিদেশিরা।
প্রসঙ্গত, গুলশান হামলার পর থেকে অর্ডার আনতে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের তৃতীয় কোনও দেশে গিয়ে বৈঠক করতে হয়েছে। বিদেশি পর্যটকরা তাদের সম্ভাব্য বেশ কয়েকটি সফর বাতিল করেছেন। এছাড়া আন্তর্জাতিক মানের বেশ কয়েকটি সম্মেলনও স্থগিত করা হয়েছে।
এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ বলেন,‘গুলশান হামলা হওয়ার পর থেকেই মানুষের মধ্যে ভীতি কাজ করছে। এখন দেশের ভেতরে হয়তো সেই ভয়টা নেই। তবে দেশের বাইরে এই ভীতিটা এখনও আছেই। কিন্তু, এই ধরনের ভীতি অর্থনীতির জন্য খুবই ক্ষতিকর।’
তিনি বলেন, ভীতি নিয়ে বিদেশিরা এই দেশে বিনিয়োগ করতে চাইবেন না। নিরাপত্তার ঝুঁকি নিয়ে কেবল বিদেশিরাই নয়, দেশি উদ্যোক্তারাও বিনিয়োগ করতে চাইবেন না। হয়ত এ কারণেই দেশে বিনিয়োগ বাড়ানো যাচ্ছে না। এদিকে রফতানি উন্নয়ন ব্যুরোর (ইপিবি) তথ্য অনুযায়ী, ২০১৬ সালের জুলাই থেকে ২০১৭ সালের এপ্রিল পর্যন্ত ১০ মাসে তৈরি পোশাক খাত থেকে দুই হাজার ৪৬৩ কোটি ডলার আয় করার লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছিল।
কিন্তু লক্ষ্যের তুলনায় ৯ দশমিক ৫৮ শতাংশ আয় কম হয়েছে ওভেন গার্মেন্টে। আর নিটওয়্যার খাত লক্ষ্যমাত্রা থেকে ২ দশমিক শূন্য ৩ শতাংশ দূরে রয়েছে। যদিও পোশাক রফতানিতে আগের বছরের তুলনায় ২ দশমিক ২১ শতাংশ প্রবৃদ্ধি হয়েছে। হলি আর্টিজান হামলার নেতিবাচক প্রভাব যে কেবল গার্মেন্টস খাতেই পড়েছে তা নয়, পর্যটন খাতেও এর ঘানি টানতে হচ্ছে।
পর্যটন খাতের উদ্যোক্তারা জানিয়েছেন, গুলশান হামলার পর বিদেশি পর্যটকরা তাদের বেশ কিছু সফর বাতিল করেছেন। এছাড়া আন্তর্জাতিক মানের বেশ কয়েকটি সম্মেলনও স্থগিত করা হয়েছে। শুধু তাই নয়, গেল এক বছরে নিরাপত্তা ইস্যুতে দেশীয় বিভিন্ন ঝাঁকজমকপূর্ণ সেলিব্রেশন অনুষ্ঠানও হয়নি।
Share.

Comments are closed.